মেন্যু
qiyamul layl

কিয়ামুল লাইল

কিয়ামুল লাইল বা তাহাজ্জুদ সালাতের উপর এক হৃদয়স্পর্শী আলোচনা।

পরিমাণ

35  47 (26% ছাড়ে)

পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন
পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন

16 রিভিউ এবং রেটিং - কিয়ামুল লাইল

5.0
Based on 16 reviews
5 star
100%
4 star
0%
3 star
0%
2 star
0%
1 star
0%
 আপনার রিভিউটি লিখুন

Your email address will not be published.

  1. 5 out of 5

    sayed abdullah:

    নাম:কিয়ামুল লাইল
    লেখক:শাইখ আহমাদ মুসা জিবরিল
    প্রকাশনী:সমর্পণ
    প্রচ্ছদ মূল্য:৪৭টাকা
    ক্রয় মূল্য:৩৩টাকা (অফারে)
    পৃষ্ঠা:২৯ পৃষ্ঠা

    ➡বইটির ধরণ:
    বইটি একদম ছোট পেইজের ওজন দেখেই বুঝা যাচ্চে, তবে এর মহাত্মা বিশাল,যা বর্ণনা করে শেষ করা যাবে না।

    ➡সারমর্ম:
    বইটির নামে বাজারে অনেক বই আছে।তবে এই অল্প কথার বইটি আমার নিজের উপর অনেক প্রভাব ফেলেছে।যে কেউ পড়লেও আশা করি কিনচিৎ পরিবর্তন আসবে ইনশাআল্লাহ।
    কারণ, আমরা অনেকই, শক্ত ভাবে নিয়ত করি যে,আজকে তাহাজ্জুদ পড়বোই কিন্তু তবুও হয় না, কারণ কি কেন হয় না?
    বই দেখলেই পাবেন,কারণ এটা আল্লাহর খাস রহমত।

    আল্লাহ তায়লা ইরশাদ করেন

    “আর আল্লাহ কে অধিক স্মরণ কারী(যাকিরিন) পূরুষ ও নারীদের জন্য আল্লাহ প্রস্তুত রেখেছেন ক্ষমা ও মহা পুরষ্কার”
    (সূরা আল আহযাব:৩৫আয়াত)

    রাসূল সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন:
    যখন একজন মানুষ তার স্ত্রীকে রাতে ঘুম থেকে জাগিয়ে তুলে এবং একাকী এবং জামায়াতে মাত্র দুই রাকাআত সালাত আদায় করে,তবে তাদের যাকিরিনের অন্তর্ভুক্ত করা হয়।
    (আল হাদীস, সনদ সহীহ অভিমত শায়খ আলবানী রহিমাহুল্লা)

    রাসূল সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম:
    সেই নারী ওপর আল্লাহ সন্তুষ্ট হন,যে নিজে রাতে জাগে,ইবাদত করে এবং স্বামীকে ডেকে দেয়। আর যদি সে উঠতে অস্বীকৃতি জানায়,তাহলে তার মুখে পানির ছিটা দিয়ে ঘুম ভাঙ্গায়।
    (আল হাদীস, সুনানে আবি দাউদ ১৩১০)

    আল্লাহ তায়ালা ইরশাদ করেন:
    তাদের কৃতকর্মের পুরষ্কার হিসাবে তাদের জন্য যেসব চোখ জুড়ানো বস্ত লুকিয়ে রাখা হয়েছে,তা কেউ জানে না।
    (সূরা সাজদাহ:১৭ আয়াত)

    আশা করি, অনেকটায় অনুধাবন আসেছে কতটা গুরুত্বপূর্ণ এই কিয়ামুল লাইল

    আল্লাহ আমাদের সকল কে, আমলে জিন্দেগী গঠন করার তৌফিক দান করুক।
    আমিন

    3 out of 3 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  2. 5 out of 5

    mr.tahmid:

    ★ সংক্ষিপ্ত বই পরিচিতিঃ আমাদের জীবনের লক্ষ্য হচ্ছে আল্লাহর সন্তুস্টি। আর তা অর্জন করার একটি উপায় হচ্ছে কিয়ামুল লাইল। সালাফগণ এ আমল অত্যন্ত নিষ্ঠার সাথে পালন করতেন। আজ আমাদের জীবনে আল্লাহকে কাছে পাওয়ার সহজ এ আমলটি বিস্মৃতপ্রায়। শেষ কবে কিয়ামুল লাইল আদায় করেছেন?- নিজেকে নিজে জিজ্ঞেস করলেই লজ্জিত হতে হয়। এ আমলের এত মাহাত্ম্য কেন, কীভাবেই বা এই আমল নিয়মিত করা যায়, এই আমলের তৃপ্তির কারণ কী – এসব বিষয় নিয়েই এই বই।বইটি মূলত শায়খের ‘The ultimate pleasure of a believer on this earth’ নামক লেকচারের অনুবাদ।

    ★ পাঠ প্রতিক্রিয়াঃ আমরা মুখে বলি আল্লাহকে ভালবাসি। ফেসবুকে পোস্টও দেই ‘আই লাভ আল্লাহ’ লিখে। কেউ হয়ত গাড়ির বাম্পারে বা ঘরের দেয়ালে বা টিশার্টেও ব্যাপারটা লিখে রাখেন। কিন্তু দেখা যায় আমরা ইন্টারনেট ব্রাউজ করেই রাত পার করে দেই। ঘন্টার পর ঘন্টা অর্থহীন কাজে ডুবে থাকি। এই বই আমাদের জন্য ধাক্কা। এই ধাক্কা উপকারী ধাক্কা। বইটি সংগ্রহে রাখার মত বই। যখন ঈমান দুর্বল হবে এ ধরনের বই পড়ে ঈমান শক্ত করার উপায় পাবেন। শেষ রাত্রিতে আল্লাহর দরবারে কান্নাকাটি করে ঈমানের মিষ্টতা অর্জন করার মধুরতা বর্ণনা করা হয়েছে এ বইয়ে।

    বইটি ছোট। কিন্তু লেখা হয়েছে অত্যন্ত উপকারী বিষয়বস্তু নিয়ে। অনুবাদও চমৎকার। প্রকাশনী হিসেবে সুবুত প্রশংসার যোগ্য। চমৎকার কলেবর, সুন্দর অনুবাদ, আর স্বল্প মূল্যে বই প্রকাশ করে সুবুত মন জয় করে নিচ্ছে সবার।

    ★ বিস্তারিত বই পরিচিতিঃ সম্পূর্ণ বইটিই উল্লেখ করার মত। তারপরেও ছোট্র কিছু অংশ শেয়ার করছি যাতে পাঠক উপকৃত হতে পারেন।

    ১/ তাহাজ্জুদ আপনাকে সাহায্য করবে যাতে আপনি আল্লাহকে ভালবাসতে পারেন। আর এই আমলের ফলে আল্লাহও আপনাকে ভালবাসবেন। এই আমল বান্দার অন্তর প্রশান্ত করে। বান্দা যখন বিপদে পড়ে তখন সালাত ও কিয়াম হয় তার বিপদের সমাধান।

    ২/ পাঁচ ওয়াক্ত ফরয সালাতের পর সবচেয়ে দামী সালাত হল কিয়ামুল লাইল বা তাহাজ্জুদ। এটি মুমিনের সম্মান, হাশরের মাঠে উজ্জ্বলতা দিবে।

    ৩/ রাসূলুল্লাহ (সা) বলেন, ‘আল্লাহ সেই পুরুষের উপর সন্তুস্ট হন, যে রাতের বেলা ঘুম থেকে জাগে ও ইবাদাত করে এবং এরপর সে তার স্ত্রীকে ডেকে দেয়। আর সে যদি উঠতে অস্বীকৃতি জানায় তাহলে মুখে পানির ছিটা দিয়ে তার ঘুম ভাঙ্গায়। আল্লাহ সেই নারীর উপর সন্তুস্ট হন, যে রাতের বেলা ঘুম থেকে জাগে ও ইবাদাত করে এবং এরপর সে তার স্বামীকে ডেকে দেয়। আর সে যদি উঠতে অস্বীকৃতি জানায় তাহলে মুখে পানির ছিটা দিয়ে তার ঘুম ভাঙ্গায়।’ [মুসনাদে আহমাদ]

    ৪/ আল্লাহ তার প্রিয় ও পছন্দের মানুষদেরকেই শেষ রাতে তার সান্নিধ্যে পার করার অনুমতি দেন। তাহাজ্জুদের মাধ্যমে।

    ৫/ বইয়ে সালাফদের জীবন থেকে বেশ কিছু সুন্দর গল্প আছে। শেষ রাতের গল্প। আল্লাহর কাছে আসার গল্প। সালাফগণ তাহাজ্জুদের মাধ্যমে শান্তি পেতেন। এটি ছিল দুনিয়াতে তাদের তৃপ্তির বড় মাধ্যম। তারা তাহাজ্জুদের মধুরতা অনুভব করতেন। তাহাজ্জুদ ছিল তাদের জীবন, এজনন্যই তারা বাঁচতেন। তাই তা মিস হয়ে গেলে অতিশয় বিচলিত হতেন। আল্লাহ তাদের উপর রহম করুন।

    ৬/ তাহাজ্জুদ গোপন আমল। এর প্রতিদান হিসেবে আল্লাহ সারপ্রাইজ গিফট রেখেছেন যা বান্দা জানেনা। উত্তম ও আনন্দদায়ক লুকায়িত প্রতিদান।

    ৭/ তাহাজ্জুদ সফলতার চাবিকাঠি। এজন্যই নবুওয়াতের প্রথম দিকের কঠিন সময়ে তাহাজ্জুদকে ফরয করে দেয়া হয়েছিল। এ আমলের মাধ্যমে বান্দার সাথে আল্লাহর আত্মিক সম্পর্ক স্থাপিত হয়।

    ৮/ তাহাজ্জুদগোজারদের চেহারা থেকে নূর ঠিকরে বের হতে থাকে, যা আল্লাহ তার জ্যোতি থেকে দান করেন। জান্নাতে যাবার সময় পুলসিরাত তাদের কিয়ামের আলোয় আলোকিত হয়ে উঠবে। তাহাজ্জুদ আদায়কারীদের জন্য জান্নাতে বিশেষ কক্ষ ও প্রাসাদ থাকবে।

    ৯/ গুনাহের কারণে বান্দা তাহাজ্জুদ পড়তে পারেনা।

    ১০/ তাহাজ্জুদগোজারদের অন্তরে নিফাক থাকতে পারেনা। এটি মুনাফিক হওয়া থেকে রক্ষা করে। আপনি কোন শহীদ বা হক্বপন্থী আলেম পাবেন না যিনি তাহাজ্জুদগোজার নন।

    ★ শেষ কথাঃ ঈমান স্থবির হয়ে গেছে? তাহাজ্জুদ পড়ুন। মনে কোন কিছুর প্রত্যাশা আছে? তাহাজ্জুদ পড়ুন। পাপ করে ফেলেছেন? তাহাজ্জুদ পড়ুন, কান্নাকাটি করে ক্ষমা চান। জীবনে পরীক্ষা ও ফিতনার সম্মুখীন হচ্ছেন? তাহাজ্জুদ পড়ুন। আল্লাহর কাছে সাহায্য চান। ইলম হাসিল করতে চান? তাহাজ্জুদ পড়ুন। আল্লাহর প্রিয় বান্দা হতে চান? তাহাজ্জুদ পড়াকে অভ্যাস বানান।

    ইন্টারনেট, আড্ডা এগুলো কিছু সময়ের জন্য বন্ধ রাখুন। রাতে জাগতে না পারলে ইশার পর দু রাকাত সালাত পড়ে ঘুমান। কয়েক সপ্তাহ বা কয়েক মাস বা কয়েক দিন পর আপনার মনে হবে, আপনি ফজরের আগে আদায় করতে পারবেন। ধীরে ধীরে নামাজের রাকাত আর তিলাওয়াত বড় হতে থাকবে। আর এভাবেই বান্দা তাহাজ্জুদ উপভোগ করা শুরু করে।

    এগুলো জানার পরও কী আল্লাহর সাথে একান্তে সাক্ষাত করতে ইচ্ছা হয়না? আসুন, আজ থেকেই আমরা প্রতিজ্ঞা করি যে, আল্লাহর সাথে নিজেদের সম্পর্ক উন্নুয়ন করে নিবো।

    4 out of 4 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  3. 5 out of 5

    Hasansifat1996:

    “কিয়ামুল লাইল”- বইটি মূলত ‘শাইখ আহমাদ মুসা জিবরিল’- এর কিয়ামুল লাইল বা তাহাজ্জুদের উপর দেয়া লেকচার ‘The Ultimate Pleasure of a Beliver on This Earth (Qiyaam Al- Layl) এর বাংলা অনুবাদ । বইটির সম্পাদক ‘আবু বারিয়াহ্’ ।

    এবার বইটি সম্পর্কে বলছিঃ—

    ✦ এমন একটা বই অনেক দিন ধরেই খুঁজছিলাম । অবশেষে তা পেলাম । অনেক ভাইদের কাছে তাহাজ্জুদ এর গুরুত্ব সম্পর্কে শুনতাম ,, প্রবল ইচ্ছা আছে তাহাজ্জুদ আদায় করার । কিন্তু প্রবল ইচ্ছা থাকা সত্ত্বেও তা আদায় করতে পারছিনা । ঘুমিয়ে ঘুমিয়েই রাত পার করে দিচ্ছি । কেন পারছি না?কি কারনে পারছি না? তার উত্তর এই বইটাতে পেয়েছি ।

    ✦ বইটিতে বিবাহিত জীবন আর পারিবারিক জীবনকে সুখী আর সমৃদ্ধশালী করতে তাহাজ্জুদের গুরুত্ব সম্পর্কে আলোচনা করা হয়েছে । আরেকটা নতুন বিষয় জেনেছি, সন্তানরা কিভাবে মেধাবী আর দুরদর্শী হিসেবে গড়ে উঠতে তাহাজ্জুদের সালাত ভূমিকা রাখে- তা !

    ✦ ”তাদের পিঠ বিছানা থেকে পৃথক হয় । ভয় ও আশা নিয়ে তারা তাদের রবকে ডাকে এবং আমি তাদেরকে যে রিযিক দিয়েছি,তা থেকে ব্যয় করে”-”তাদের কৃতকর্মের পুরুষ্কার হিসেবে তাদের জন্য যেসব চোখ জুড়ানো বস্তু লুকিয়ে রাখা হয়েছে,তা কেউ জানে না”–(সূরা আস সাজদাহ্)—– এ ধরনের অনেকগুলো অন্তর প্রশান্তকারী আয়াত বইটিতে উল্লেখ করা হয়েছে,,যেগুলো পড়ার পর তাহাজ্জুদ আদায় করার ইচ্ছে দশগুন বেড়ে যায় ।

    ✦ নিজেদের দুঃখ- দুর্দশার কথা অন্য মানুষকে বলে বেড়াই । একটু খানি ভরসা পাবার আশায়,সমাধান পাবার আশায় । অথচ বিশ্ব জাহানের অধিপতি, যার কাছে সব সমস্যার সমাধান রয়েছে । যিনি আমাদের প্রতি রাতেই ডেকে যাচ্ছেন । আমাদের সব সমস্যা গুলোর সমাধান দিতে চান বলে ,সব প্রয়োজন গুলো মিটিয়ে দিতে চান বলে । কিন্তু সে সময়টাতে ঘুমিয়ে কাটাচ্ছি । অবজ্ঞা করছি সেই মহিমান্বিত ডাকটিকে । এ নিয়ে বইটিতে একজন সালাফিয়ার দুআ উল্লেখ করা হয়েছে যিনি কয়েকদিনের জন্য ‘রাতের সালাত’ করতে পারেননি । তারপর তিনি আল্লাহর কাছে এই বলে দুআ করলেন,” হে আল্লাহ্,আমাকে রাতের সালাত আদায়ের তৌফিক দিন আর যদি এটা আমার তাকদিরে না থাকে, তবে আমাকে দুনিয়ার বুক থেকে উঠিয়ে নিন”—– এই ঘটনটা পড়ার পর অবাক হয়ে গেলাম যে,আমি তো সেই সালাফিয়াদের চিন্তা-চেতনার ধারে কাছেও নেই । বছরের পর বছর তাহাজ্জুদ বাদ দেই,,মনের মধ্যে এ নিয়ে বিন্দু মাত্র অনুশোচনাও জাগে না । আর উনারা মাত্র কয়েকটা দিন আদায় করতে পারেন নি, তাতেই আল্লাহর কাছে এই দুআ করেন!! তাহলে আমাদের কি করা উচিত!!

    পরিশেষে বলতে চাই,,আমার মতো যারা তাহাজ্জুদ আদায় করবো-করবো করে আর করা হয় না কিংবা যারা তাহাজ্জুদ আদায় করেন কিন্তু নিয়মিত করেন না, তাদের সংগ্রহে রাখার মতো একটা বই–“কিয়ামুল লাইল” । ৩২ পৃষ্ঠার ছোট একটা বই অথচ এটার থেকে শেখার আছে অনেক কিছু । আল্লাহর সাথে সম্পর্কটাকে আরো দৃঢ় করতে,,ইহকাল- পরকাল দুটোকেই সাফল্যমন্ডিত ও সমৃদ্ধ করতে ‘তাহাজ্জুদ’- এর গুরুত্ব সত্যিই অপরিসীম । আল্লাহর কাছে নিজের অবস্থান অনেক উঁচুতে নিয়ে যেতে তাহাজ্জুদের কোনো বিকল্প নেই । তাহাজ্জুদকে জীবনের অবিচ্ছেদ্য অংশে পরিণত করতে বইটা সত্যিই অনেক উপকারী…||
    2 out of 2 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  4. 5 out of 5

    Maruf:

    মুসলমানদের জিবনে কিয়ামুল লইল যে কত গুরুত্বপূর্ণ
    তা বুক টা পড়ায় আরো ভালোভাবে বুঝা যাই
    এক কথায় অসাধারণ
    1 out of 1 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  5. 5 out of 5

    আকরাম:

    আলহামদুলিল্লাহ অনেক সন্দর একটা বই
    1 out of 1 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No