মেন্যু
ghure darao

ঘুরে দাঁড়াও

অনুবাদক : মোঃ সাদেক হোসেন মিনহাজ
পৃষ্ঠা : 220, কভার : পেপার ব্যাক, সংস্করণ : 1st Published, 2019
আইএসবিএন : 9789849501329, ভাষা : বাংলা
ঘুরে দাঁড়াও বইটি পর্ন-আসক্তি থেকে মুক্তিলাভের প্রেসক্রিপশন। তবে এই বইয়ের নির্দেশনাগুলো মেনে চলতে পারলে শুধু আসক্তি থেকে মুক্তিলাভ করবেন এমন নয়, আপনি সত্যিকার অর্থেই একজন আত্মপ্রত্যয়ী সফল মানুষ হতে পারবেন। . ভাববেন... আরো পড়ুন
পরিমাণ

201  310 (35% ছাড়ে)

পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন
পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন

18 রিভিউ এবং রেটিং - ঘুরে দাঁড়াও

5.0
Based on 18 reviews
5 star
100%
4 star
0%
3 star
0%
2 star
0%
1 star
0%
 আপনার রিভিউটি লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

  1. 5 out of 5

    Mizan:

    আসলেই এই বইটি পড়ে অনেক কিছুই নতুন করে শুরু করার অনুভূতি জাগিয়ে তোলে। ধন্যবাদ এমন একটি বই উপহার দেওয়ার জন্য।
    বিনাপানি
    28 out of 31 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  2. 5 out of 5

    muhammadabrar2522005:

    পর্নোগ্রাফি একজন মানুষকে হায়েনায় পরিণত করে। পর্ন-আসক্তরা মেয়েদেরকে শুধু ভোগের বস্তু হিসেবে দেখে।।স্ত্রীও যে একটা মানুষ, এই মানুষটাকে যে ভালোবাসা যায়,সুখ-দুঃখ শেয়ার করা যায় এটা তারা ভাবতে পারে না। পর্নোগ্রাফি তাদের সুস্থ চিন্তাশক্তি নষ্ট করে দেয়। তারা মনে করে যৌনতাই সবকিছু। তারা মনে করে পর্নে দেখানো যৌনতাই আদর্শ যৌনতা। বিবাহের পর তারা পর্নে দেখানো পদ্ধতিতে স্ত্রীর সাথে যৌনমিলন করতে চায়। স্ত্রীকে অ্যানাল সেক্স,ওরাল সেক্সের মতো বিকৃত ও ঘৃণ্য যৌনতায় লিপ্ত করতে চায়। স্ত্রী কঠোর প্রতিবাদ করলে স্ত্রীর উপর রীতিমতো জোর খাটানোর চেষ্টা করে। ফলে সংসারে অশান্তির শুরু হয়, এবং শেষ হয় ডিভোর্সের মাধ্যমে। কে তাদের সংসারটা ধ্বংস করল?

    পর্নোগ্রাফি দেখার পাশাপাশি ৯৫% যুবক হস্তমৈথুন করে থাকে। পর্ন দেখে কিন্তু হস্তমৈথুন করে না এমন খুবই কম। হস্তমৈথুন করার ফলে আজকাল ১৮ বছরের যুবকও প্রিম্যাচিউর ইউজাকুলেশনের (লিঙ্গ-উত্থিত না হওয়া) শিকার। এই ছেলেগুলোর জীবনটা কে বরবাদ করল?

    এর জবাব পানির ন্যায় পরিষ্কার, পর্নোগ্রাফি।

    যখন আমাদের সমাজে পর্নকে ট্যাবু বানিয়ে যুবসমাজকে অন্ধকার খাদের দিকে ঠেলে দেওয়া হচ্ছিল ঠিক তখনই পুরো সমাজব্যবস্থার বিপরীতে গিয়ে কিছু ভাই ঘুরে দাড়াবার আহ্বান করলেন। খাদের কিনারা থেকে যুবসমাজকে টেনে তোলার আপ্রাণ চেষ্টা চালাতে লাগলেন। এরই ধারাবাহিকতা “ঘুরে দাড়াও” বইটি প্রকাশিত হয়।

    বইটির মূল লেখক ওয়ায়েল ইব্রাহিম একজন অভিজ্ঞ লাইফ কোচ। অসংখ্য পর্ন-আসক্তকে তিনি ঘুরে দাড়াতে সাহায্য করেছেন। তার বিশাল অভিজ্ঞতার আলোকে তিনি ‘Beat it’ নামক একটি বই বের করেন।৷ বাংলাদেশে পর্নোগ্রাফির বিরুদ্ধে কাজ করা Fight Against dehumanization৷ নামক পেজের ভাইদের উদ্যোগে ঘুরে দাড়াও নামে এই বইটি প্রকাশিত হয়। বইটি বের হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ‘মুক্ত বাতাসের খোঁজে’ এর ন্যায় বিপুল সাড়া পায়। পর্ন আসক্তের জন্য এ বইটি অত্যন্ত সহায়ক হবে।

    ওয়ায়েল ইব্রাহিম একজন লাইফ কোচ হবার সুবাদে অনেক পর্ন-আসক্তদের ট্রিটমেন্ট করেছেন। এ বিষয়ে বিস্তর জ্ঞান থেকেই বইটি লিখেছেন উনি। যেহেতু অনেক পর্ন-আসক্তের ট্রিটমেন্ট করেছেন তাই ভালো করেই জানেন যে কীভাবে পর্ন আসক্তি কাটানো যায়। উনার থেকে যেই ট্রিটমেন্টগুলো নিয়ে অসংখ্য মানুষ পর্ন-আসক্তি কাটিয়ে উঠেছেন সেই ট্রিটমেন্টগুলোই তিনি বই আকারে পাবলিশ করেছেন। যারা উনার নিকট যেয়ে ট্রিটমেন্ট নিতে পারছে না তারাও যেন পর্নপর ভয়াল থাবা থেকে মুক্তি পায় এ উদ্দেশ্যেই বইটি লেখা। বইটির প্রতিটি অধ্যায়ই খুব গুরুত্বপূর্ণ। যদি কেউ বইটির দেয়া টিপসগুলো ঠিকমতো ফলো করেন তাহলে ইনশাআল্লাহ অচিরেই পর্ন নামক মহামারী থেকে মুক্তি পাবেন।

    36 out of 41 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  3. 5 out of 5

    musaabeer4:

    ▶ওয়ায়েল ইব্রাহিম:
    ওয়ায়েল ইব্রাহীম একজন ম্যাক্সওয়েল সার্টিফাইড স্পিকার, একজন অভিজ্ঞ লাইফ কোচ এবং শিক্ষক। পর্ন আসক্তি থেকে পশ্চিমের যে কয়েকজন বিশেষজ্ঞ মাঠ-পর্যায়ে কাজ করছেন, তাদের মধ্যে তিনি একজন। এছাড়াও সেলফ ডেভলপমেন্ট, পাবলিক স্পিকিং, কমিউনিকেশন স্কিল, মেন্টরিং, লিডারশিপ ও লাইফ কোচিং-এ একজন প্রফেশনাল ট্রেইনার তিনি।
    .
    ▶ঘুরে দাঁড়াও পরিচিত:
    লেখকের বিখ্যাত বই ‘Beat it’ এর অনুবাদ ‘ঘুরে দাঁড়াও’। নাম পড়ে বইটিকে অনুপ্রেরণামূলক মনে হলেও বইটি মোটেও স্রেফ অনুপ্রেরণামূলক নয়, বরং পর্ন আসক্তি থেকে বের হয়ে আসার প্রেসক্রিপশনের সমাহার। দীর্ঘদিন যাবত পিড়ায় আক্রান্ত রোগীকে একজন ডাক্তার পর্যায়ক্রমে নানান ঔষধ এবং পরিচর্যার মাধ্যমে একটু একটু করে সুস্থ করে তোলেন(আল্লাহর ইচ্ছায়), বইটি পর্ন আসক্তদের জন্য ঠিক তেমনই একজন ডাক্তারের ভূমিকা পালন করবে। একজন ডাক্তার যেমন ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সবার জন্য কাজ করে যান, বইটিও ঠিক সেইভাবেই সাজানো হয়েছে। তাই এখানে ধর্মীয় আলোচনা রাখা হয়নি। লেখক তার হাজারো ক্লায়েন্টকে পর্ন আসক্তি থেকে বের হয়ে আসার যত রকম কৌশল শিখিয়ে দিতেন, এবং সেগুলো অনুসরণ করে যাদের অধিকাংশই আজ পর্ন থেকে মুক্ত, সেই কৌশলগুলো নিয়েই বইটি। কাজেই এটি গবেষণা-গ্রন্থ বললেও ভুল হবে না।
    .
    ▶মুক্ত বাতাসের খোঁজে এবং এই বইয়ের পার্থক্য কোথায়?
    মুক্ত বাতাসের খোঁজে বইটি মূলত বিভিন্ন প্রবন্ধের সংকলন। লস্ট মডেস্টি তাদের পেইজে এবং ব্লগে দীর্ঘদিন যাবত যেসকল প্রবন্ধ অনুবাদ/সংকলন প্রকাশ করছিল, সেগুলো একত্রিত করে বইটি লেখা হয়েছে। তাই এতে যেমন সমাধান আছে, তেমনি আছে গল্প, জরিপ, ইতিহাস, না জানা অনেক কিছু। পর্ন ইন্ডাস্ট্রির মুখোশ উন্মোচন থেকে শুরু করে নীল দুনিয়ার ভয়াবহতার যাবতীয় দিক এতে আলোচিত হয়েছে। কিন্তু কিছু ক্ষেত্রে আসক্তি একটি রোগের স্তরে পৌঁছে যায়। তখন শুধু অনুপ্রেরণা, কিংবা ভয়াবহতা শুনিয়ে রোগীকে রোগ থেকে বের করে আনা যায় না। সেগুলো পড়ে সে তার দৈনন্দিন রুটিন নিজেই সাজাবে—এমনটা আশা করাও দুষ্কর। বরং এ থেকে সাময়িকভাবে বিরত থাকার মনোবল পাওয়া গেলেও দীর্ঘপথ চলায় এটা যথেষ্ট নয়। তাই একটি নিয়মতান্ত্রিক গাইডলাইন দরকার, যেখানে step by step সমাধান আলোচনা করা হবে। ব্যক্তিকে সরাসরি কাজের কথা বলবে; হঠাৎ urge এর মুহূর্তে কী করণীয়, খারাপ চিন্তাকে হটিয়ে বিদায় জানানোর উপায়, মস্তিষ্ককে কেমন করে পুনর্গঠন করা যায়, খাদ্যাভ্যাসে কেমন পরিবর্তন আনা জরুরী, কী কী অভ্যাস গড়ার দ্বারা পর্নের চাহিদা শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনা যাবে ইত্যাদি বিষয় রুটিনের আলোকে সাজিয়ে দিলে একজন রোগীর জন্য ফলপ্রদ হয়। ঘুরে দাঁড়াও বইটি এই দিকগুলো নিয়েই কাজ করেছে।

    তথাপি মুক্ত বাতাসের খোঁজে বইটিকে একদম ছুড়ে ফেলে দেবার সুযোগ নেই। বরং আমি বলব প্রাথমিকভাবে সবার মুক্ত বাতাসের খোঁজে বইটি দিয়েই শুরু করা উচিত। তাহলে পর্দার পেছনের চিত্রটা যেমন স্বচ্ছ হবে, তেমনি ইসলামের বিধিনিষেধগুলোও পরিষ্কার হবে। এরপর পাঠক যদি ঘুরে দাঁড়াও বইটি পড়ে, তাহলে ইংরেজিতে বলব ‘Perfect combination. Now you are ready to move’.
    .
    ▶যা কিছু ভালো লাগেনি:
    বইয়ের নাম প্রচ্ছদের সাথে মানানসই হলেও প্রচ্ছদ দেখে বোঝার জো নেই এটি কী বিষয়ে রচিত। আসক্তদের দৃষ্টি আকর্ষণে এরকম প্রচ্ছদ ডিজাইন খুব একটা কাজের হবে বলে মনে হয়নি। এ ক্ষেত্রে বাহিরের দেশের পর্ন বা সেলফ হেল্প বইগুলোর প্রচ্ছদ দেখা যেতে পারে। দ্বিতীয়ত কাগজ এবং বাইন্ডিং মান উন্নত হলেও ২২৪ পৃষ্ঠার একটি বই হার্ড কভার নয় দেখে বেশ অবাক হয়েছিলাম। আশা করি প্রকাশক পরবর্তী সংস্করণে বিষয়গুলো নিয়ে ভেবে দেখবেন।
    .
    ▶সার কথা:
    যে কোনো আসক্তি নিরাময়ে নীতি কথার চেয়ে কাজের কথা বেশি জরুরী। শুধু ভাল লাগা অনুভূতি দেবার বদলে যে বই কর্মে বাস্তবায়নের দিকে পাঠককে বেশি ধাবিত করে, সেটাই সেরা সেলফ হেল্প বই। ঘুরে দাঁড়াও এমনই একটি গাইডলাইন।

    22 out of 26 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  4. 5 out of 5

    Tareq Aziz:

    অতীত কখোনো ফিরে আসেনা। অতীতের ব্যর্থতা নিয়ে আমরা অনেক আফসোস করি। আফসোস করতে করতে বর্তমান সময়টাকেও বিষিয়ে তুলি । ভবিষ্যতে কি হবে তা নিয়ে আমরা অনেক সময় দুশ্চিন্তায় ভুগি। আমাদের যে সময় নিয়ে চিন্তা করা উচিত, সেটা হচ্ছে বর্তমান। যেকোনো সমস্যা সমাধানের জন্য প্রথমেই ভাবতে হবে, এখন আমাকে কি করতে হবে।

    পর্ণ থেকে বাঁচতে ঠিক এখন আপনাকে কি করতে হবে, সেই লেখা নিয়ে ‘ঘুরে দাঁড়াও’ বইটি। আপনি আসক্তির যেকোনো পর্যায়ে থাকতে পারেন। বইটি অনুসরণ করুন। পর্ণ আসক্তি থেকে বের হওয়ার জন্য বইটি যথেষ্ট।

    আল্লাহ তায়ালা আমাদের উপর সাধ্যের বাহিরের দায়িত্ব চাপিয়ে দেননা। তিনি অশ্লীলতাকে হারাম করে দিয়েছেন। অশ্লীল কাজ থেকে বিরত থাকা অবশ্যই আল্লাহ তায়ালা আমাদের সাধ্যের মধ্যেই রেখেছেন। নাহলে এটি গুনাহ হতোনা। আর কীভাবে এই অশ্লীলতা থেকে বেঁচে থাকা আমাদের সাধ্যের মধ্যে রাখা হয়েছে তার সায়েন্টিফিক ব্যাখ্যা করে দিবে ‘ঘুরে দাঁড়াও’ বইটি। এমনকি এই আসক্তি যদি চরম পর্যায়েও চলে যায় তবুও।

    আসক্তি থেকে বের হওয়ার মানে হচ্ছে আপনার ব্রেইনকে পূর্ণগঠন করা। এত দিন ধরে আপনার ব্রেইন যেভাবে চিন্তা করতে অভ্যস্ত ছিলো সেটাকে পরিবর্তন করে দেয়া। আসক্ত অবস্থায় আপনার ব্রেইন কীভাবে কাজ করে তার বর্ণনা পেয়ে যাবেন বইটিতে। আপনার আসক্ত ব্রেইনকে ঠিক কীভাবে স্বাভাবিক করবেন তার পুরো কর্মনীতি পেয়ে যাবেন এতে। কোন অভ্যাস কীভাবে তৈরি হয় এবং সেই অভ্যাস কীভাবে আসক্তিতে রূপ নেয়, কীভাবে আবার সেই আসক্ত অভ্যাস থকে বের হওয়া যায়; এই সকল প্রশ্নের উত্তর পেয়ে যাবেন বইটিতে নিউরো-সাইন্টিস্টদের ব্যাখ্যা সহ।

    মোট একশ টিপস আছে এতে। সাধারণ কোন টিপস নয়। অভিজ্ঞতার আলোকে, গবেষণা প্রাপ্ত টিপসগুলো।এই বইয়ের বিশেষ গুণ হলো , প্রত্যেক অধ্যায়ের শেষে একটি সামারি যুক্ত করা আছে। প্রতিটি অধ্যায় থেকে আপনার করনীয় কাজ সামারি দেখে সহজেই বুঝে যাবেন।

    বইটি শুরু হয়েছে পর্ণের কিছু ভয়াবহ পরিসংখ্যান দিয়ে। পর্ণের যে সয়লাব ঘটেছে ,তার বিবরণ গায়ে কাঁটা দেওয়ার মতো। বছরের পর বছর পর্ণে আসক্ত আপনি। এর থেকে বের হতে চাচ্ছেন। কীভাবে শুরু করবেন! এই ‘শুরু করাটা’ দিয়েই হচ্ছে প্রথম অধ্যায়। কীভাবে পরিকল্পনা করবেন , কেন শুরু করবেন , শুরু করলে কি লাভ; বিস্তারিত লেখা নিয়ে এই অধ্যায়টি।

    এইভাবে মোট ১২ টি অধ্যায় আছে বইটিতে। ২২৪ পাতার বই। যে রিসোর্সগুলো থেকে বইয়ের তথ্য নেয়া হয়েছে সেগুলো বইয়ের শেষে রেফারেন্স হিসেবে যুক্ত করা আছে। একদম বইয়ের শেষে ১২ টি অধ্যায়ের মোট ১০০ টিপস সারিবদ্ধভাবে তুলে দেয়া হয়েছে।

    পর্ণ আসক্তি থেকে বের হতে চান? ‘ঘুরে দাঁড়াও’ বইটিকে আপনার নিত্যদিনের সঙ্গী করে নিন।

    29 out of 33 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  5. 5 out of 5

    ইয়াছিন আহমদ:

    অসাধারণ বইটি। আমাদের ঘুনে ধরা যুব সমাজের জন্য খুবই উপকারী। এরকম বই আরও অনুবাদ করা দরকার।
    27 out of 29 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No