মেন্যু
salat dua o zikir

সালাত, দুআ ও যিকর

পৃষ্ঠা : 176, কভার : হার্ড কভার, সংস্করণ : 1st Published, 2018
আইএসবিএন : 9789849363316
‘সালাত, দু’আ ও যিকর’ বইটির লেখক পরিচিতিঃ ড.খোন্দকার আ. ন. ম. আব্দুল্লাহ জাহাঙ্গীর (রাহিমাহুল্লাহ) জন্ম: ঝিনাইদহ জেলায় ১৯৫৮ সালে। মৃত্যু: ১১ই মে ২০১৬। পিতা মরহুম খোন্দকার আনোয়ারুজ্জামান। মাতা বেগম লুৎফন্নাহার। ঝিনাইদহ আলিয়া মাদ্রাসায় ফাজিল পর্যন্ত... আরো পড়ুন
পরিমাণ

168  240 (30% ছাড়ে)

পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন
পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন

2 রিভিউ এবং রেটিং - সালাত, দুআ ও যিকর

5.0
Based on 2 reviews
5 star
100%
4 star
0%
3 star
0%
2 star
0%
1 star
0%
 আপনার রিভিউটি লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

  1. 5 out of 5

    Esrat jahan:

    আমার বইটা পড়ে খিবই ভালো লেগেছে। এই বইটা তে বিভিন্ন দু’আ আছে। সালাতের সঠিক নিয়ম রয়েছে। কারো যদি সালাত নিয়ে কোনো দন্দ থাকে থাহলে নিরভয়ে আপনি এখান থেকে ওয়াডার করে পড়তে পারেন।
    3 out of 3 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  2. 5 out of 5

    reaz0313:

    ঈমান আনার পরে দ্বীনের যে রূকনটি বেলায়াতের পথে অগ্রসর হতে একজন বান্দাকে সবচেয়ে বেশি সহযোগিতা করে তা হলো সালাত। সালাতের মাধ্যমেই একজন ব্যক্তি পরিপূর্ণ কামালিয়াত হাসিল করতে পারেন। আর এ সালাতকে কামিয়াবির দরজায় পৌঁছানোর জন্য সুন্নাহসম্মত পদ্ধতিতে তা আদায় করার কোন বিকল্প নেই। “সালাত, দুআ’ ও যিকর” বইটি সেই দৃষ্টিকোণ থেকেই রচিত।

    বই পরিচিতি_______________
    সহীহ্ সুন্নাহকে প্রতিষ্ঠিত করার জন্য বাংলাদেশের ইলমী ময়দানে এখনতক যে কয়েকটি কালজয়ী গ্রন্থ রচিত হয়েছে “রাহে বেলায়াত” বইটি তার মধ্যে অন্যতম। “সালাত, দুআ’ ও যিকর” বইটি মূলত “রাহে বেলায়াত” বইটির একটি অধ্যায়ের স্বতন্ত্র প্রকাশনা মাত্র। বলা বাহুল্য, “রাহে বেলায়াত” বইটিতে সালাত অংশের যে আলোচনা বিদ্যমান, তা-ই হুবহু আলোচ্য বইটিতে স্থান পেয়েছে। যেহেতু “রাহে বেলায়াত” বইটি কলেবরে বিশাল, তাই শুধু সালাত সংক্রান্ত আলোচনার চাহিদার নিরিখেই “সালাত, দুআ’ ও যিকর” শীর্ষক আলাদা এ প্রকাশনা।

    বইটিতে যা আছে_______________
    মূলত সহীহ্ সুন্নাহ-র আলোকে সালাতের গুরুত্বগত ও পদ্ধতিগত নানা বিষয় আলোচনা করা হয়েছে বইটিতে। প্রথমেই সালাতের গুরুত্ব এবং এর সংক্ষিপ্ত পদ্ধতি আলোচিত হয়েছে। এরপর পর্যায়ক্রমিকভাবে সালাতের পূর্ব ও মধ্যকার বিভিন্ন বিষয়ের দিকে আলোকপাত করা হয়েছে। প্রতিটি পর্যায়ের সংশ্লিষ্ট যিকর পর্যাপ্ত রেফারেন্স সহকারে উপস্থাপন করা হয়েছে।

    সালাতের মৌলিক আলোচনার শেষে ধারাবাহিকভাবে উঠে এসেছে সালাতুল বিতর, সালাতুল জানাযা ও অতিরিক্ত কিছু নফল সালাতের বিষয়াদি। বইটির সর্বশেষ অংশে স্থান পেয়েছে সালাতুত তারাবীহ ও তাহাজ্জুদ সালাতের আলোচনা। অতঃপর ১৩১ টি বইয়ের বিশাল গ্রন্থপঞ্জি দিয়ে বইটির পরিসমাপ্তি ঘটেছে।

    বইটিতে যা নেই_______________
    নামকরণ অনুযায়ী বইটিতে শুধুই সালাতের ব্যাপারে আলোচনাই এসেছে। সালাত থেকে ফারেগ হবার পর যে সকল মাসনূন যিকর ও দুআ’ আছে সে সম্পর্কে এ বইতে কোন আলোচনা নেই। থাকলে অবশ্য বইটির কলেবর আরেকটু বেড়ে গেলেও বইটি পূর্ণতা পেতো অনেকখানি। সালাত পরবর্তী মাসনূন যিকর ও দুআ’গুলো সরাসরি সালাতের অংশ নয় বলেই হয়তো এ বইতে তা তুলে আনা হয়নি। আগ্রহী পাঠককে এজন্য “রাহে বেলায়াত” বইটির দ্বারস্থ হতে হবে।

    বইটি কেন পড়া উচিত_______________
    সালাত সংক্রান্ত মৌলিক বিধানাবলি অত্যন্ত সহজ ও সাবলীল ভাষায় সুন্নাহ ও আসার সহকারে উপস্থাপন করা হয়েছে এ বইতে। সালাতের একেকটি পর্যায়ের একাধিক যিকর উচ্চারণ ও অর্থসহ উল্লেখ করা আছে। আর পর্যাপ্ত রেফারেন্স বইটির গ্রহণযোগ্যতা বাড়িয়ে তুলেছে বহুগুণ। বিভিন্ন বিষয়ের একাধিক সুন্নাহসম্মত পদ্ধতিও উল্লেখ আছে এতে। নিরসন করা হয়েছে কিছু মতভেদগত সমস্যা। সার্বিক বিবেচনায় বইটি সালাত সংক্রান্ত মৌলিক আলোচনার একটি প্রামাণিক উপস্থাপনা।

    শেষকথা_______________
    সুন্নাহ-র আলোকে সালাতের মৌলিক রূপরেখা পেতে সংক্ষিপ্ত পরিসরের “সালাত, দুআ’ ও যিকর” বইটি অনেক সহায়ক হবে ইনশা আল্লাহ।

    12 out of 12 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No