মেন্যু
olosotar biruddhe juddho

অলসতার বিরুদ্ধে যুদ্ধ

পৃষ্ঠা : 152
অনুবাদ: হাসান মাসরুর অলসতা একটি মারাত্মক ব্যাধি। যা দুনিয়া-আখিরাত উভয় জগতের কল্যাণ ও সাফল্য লাভ থেকে বঞ্চিত হওয়ার কারণ। যার মাঝে অলসতা চেপে বসে, তার জীবনে কোনো উন্নত লক্ষ্য থাকে না।... আরো পড়ুন
পরিমাণ

148  200 (26% ছাড়ে)

পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন
পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন

1 রিভিউ এবং রেটিং - অলসতার বিরুদ্ধে যুদ্ধ

5.0
Based on 1 review
5 star
100%
4 star
0%
3 star
0%
2 star
0%
1 star
0%
 আপনার রিভিউটি লিখুন

Your email address will not be published.

  1. 5 out of 5

    কামরুননাহার মীম:

    কর্মহীন সকাল, অলস একটা দুপুর এভাবেই অজস্র সময় গড়িয়ে যায় জীবন থেকে। একটার পর একটা মুহুর্ত আমার আলসেমির মাঝেই কেটে যায়। আমার বহু কাজ “আজ করব, কাল করব” ভেবে ভেবেই শেষ মুহুর্ত এসে পড়ে। অতঃপর হারিয়ে যাচ্ছে জীবনের গুরুত্বপূর্ণ সময়, অলস থেকে আরেকগুণ বেশি অলস হওয়ার প্রতিযোগিতা চলছে আমার নফসের মাঝে। ইলম, আমলের ঘাটতিতে জীবন থেকে দ্বীনের দিশা হারিয়ে যাচ্ছে। কিছুতেই অলসতাকে কাটিয়ে উঠতে পারছিনা, কিছুতেই আমলে মনযোগী হতে পারছিনা। কোনোভাবেই অলসতা কাটিয়ে নিজের উন্নয়নে মনোনিবেশ করতে পারছিনা। আর আমার এই কাজকে সহজ করতে অবশেষে হাতে এলো ” অলসতার বিরুদ্ধে যুদ্ধ” বইটি।

    বইটিতে অলসতার পার্থিব লাভ ক্ষতি নিয়ে কিছু কথা, ইসলামের দৃষ্টিতে অলসতার পরিণাম বা প্রতীককে তুলে ধরেছেন। সালাফগণের কথা, রাসুলের হাদিস দ্বারা অলসতার নানা বিষয় আলোকপাত করা হয়েছে সংক্ষেপে। অলসতা নামক ব্যধিকে জীবন থেকে তাড়িয়ে দেওয়ার মোট দশটি উপায় বাতলে দিয়েছেন লেখক। প্রতিটি উপায়কে ভিন্ন ভিন্ন অধ্যায়ে আবার নতুন নতুন শিরোনামে যুক্ত করে সাজিয়েছেন বইটিকে। অলসতার বিদায়ের জন্য কিভাবে আল্লাহ সুবহানাহু ওয়াতাআ’লার কাছে দু’আ করবো। মুনাফিকদের আলামত ‘অলসতা’-কে কীভাবে পরাজিত করে নিফাকের ভয় থেকে বেঁচে থাকব, প্রতিদানের বিশ্বাসকে বুকেধারণ করে অলসতাকে দূর করে কীভাবে জান্নাতের দিকে অগ্রসর হওয়া যায় সেসকল বিষয় হাদিসের আলোকে ফুটিয়ে তুলেছেন। শাস্তির ভয় থেকে বেঁচে থাকতে অলস মস্তিষ্ককে প্রোডাক্টিভ করার উপায় আলোচনা করেছেন হাদিসে হাদিসে কিংবা কুরআনের আয়াতের মাধ্যমে। অলসতাকে পরাজিত করতে লক্ষ্য স্থিরের ভূমিকা আলোকপাত করে জীবনে উন্নতি করার পথ সম্পর্কে জানিয়েছেন। এছাড়াও মুহাসাবা সহ আলস্যের বীজকে উপড়ে ফেলতে নানা উপায় চমৎকার শিরোনামে সাজিয়েছেন লেখক। অলসতা কেবল ইহকালীন নয় বরং পরকালীন জীবনের জন্যেও হুমকীস্বরুপ। আর সেই ব্যধির ক্ষতিকর প্রভাব কেমন আর নিরাময় কীভাবে ঘটবে তা জানতে বইটি পড়তেই হবে।

    যুবক হোক বা বৃদ্ধ প্রায় সবার মাঝেই অলসতা এক মারাত্মক ব্যধি হয়ে দাঁড়িয়েছে। লেখকের অসাধারণ চিন্তাভাবনাকে কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ উপায়ের মাধ্যমে ইসলামের দৃষ্টিকোণ থেকে আলোচনা করা নিঃসন্দেহে বইটির বিশেষ দিক। গতানুগতিক প্রবন্ধের চেয়ে বেশ অনেকটা ভিন্নতা বহন করে এই বইটি। প্রতিটি চমৎকার শিরোনামই পাঠককে বইটির ভেতর হারিয়ে যেতে বাধ্য করে৷ প্রতি পৃষ্ঠা পড়তে গিয়ে মনে হয়, “এ লিখা যেন একান্ত আমারই জন্য লেখা।” অসাধারণ ভাবভঙ্গি, অনুবাদকের সহজ সাবলীল অনুবাদ, গুরুত্বপূর্ণ কন্টেন্ট, লেখকের লেখনশৈলী বেশ বিমোহিত করেছে।

    অলসতার অন্ধকারে তলিয়ে যেতে যেতে জীবনের গুরুত্বপূর্ণ সময়গুলো হারিয়ে ফেলছি আমরা। এভাবে অলসতায় সময়গুলো অপাত্রে বিলিয়ে দিতে দিতে মালাকুল মউত এসে পড়লে উপায় থাকবে আমল, ইলমের ঘাটতি পূরণের? বইটি পড়তে গিয়ে হয়তো উপলব্ধির দ্বার উন্মোচিত হবে কিংবা পেয়ে যাবেন পরিবর্তনের আলোকচ্ছটা।

    1 out of 1 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No