মেন্যু
ইলা-শাবাবিল উম্মাহ

ইলা-শাবাবিল উম্মাহ

প্রকাশনী : আয়ান প্রকাশন
সম্পাদক : মুহাম্মাদ সাজেদুল ইসলাম
পৃষ্ঠা : 48, কভার : পেপার ব্যাক, সংস্করণ : 1st Published, 2022
আইএসবিএন : 9789849599883, ভাষা : বাংলা
এই কয়েক পৃষ্ঠার মধ্যে নবিজি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম কর্তৃক যুবকদেরকে উদ্দেশ্য করে বলা বাণী সমূহ উল্লেখ করা হয়েছে। হাদিসের বিশাল ভান্ডার থেকে কয়েকটি হাদিস আনা হয়েছে। যা সর্বকালের সকল যুবকদের... আরো পড়ুন

Out of stock

পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন
পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন

6 রিভিউ এবং রেটিং - ইলা-শাবাবিল উম্মাহ

4.3
Based on 6 reviews
5 star
83%
4 star
0%
3 star
0%
2 star
0%
1 star
16%
 আপনার রিভিউটি লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

  1. 5 out of 5

    kamrun Nahar:

    যৌবন মানেই বন্ধু, আড্ডা, গান, মাস্তি নয়। মহান আল্লাহ ক্ষণিকের জন্য মানুষকে তার এই বিশেষ নিয়ামত দিয়ে পরীক্ষা করেন। যারা তাতে উত্তীর্ণ হবে, তারাই সফল। আর যারা তা অবহেলা করবে, তারা চিরব্যর্থ। যে ব্যক্তি তার যৌবনকে আল্লাহর ইবাদতে ব্যয় করবে, কঠিন কিয়ামতের দিন সে মহান আল্লাহর আরশের ছায়াতলে আশ্রয় পাবে।রাসুল (সা.) বলেন,‘যেদিন আল্লাহর রহমতের ছায়া ছাড়া আর কোনো ছায়া থাকবে না,সেদিন সাত ব্যক্তিকে আল্লাহ তাআলা তাঁর নিজের ছায়ায় আশ্রয় দেবেন।তাদের মধ্যে একজন হচ্ছে সে ব্যক্তি,যে যুবক বেড়ে উঠেছে মহান প্রতিপালকের ইবাদতের মধ্যে।’
    (বুখারি, হাদিস : ৬৬০)
    যুগে যুগে সব পাপ ও অন্যায়ের বিরুদ্ধে যুবকরাই দাঁড়িয়েছে।প্রত্যেক জাতির ইতিহাসেই দেখা যায়,তাদের মুক্তি,শান্তি-শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে যুবকরাই অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছে।তেমনই এক যুবক ছিলেন ইবরাহিম (আ.), যিনি সর্বপ্রথম নিজ গোত্রের মূর্তিপূজার বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছিলেন।পবিত্র কোরআনে ইরশাদ হয়েছে, ‘তাদের কেউ কেউ বলল, আমরা শুনেছি, এক যুবক এই মূর্তিগুলোর সমালোচনা করে। তাকে বলা হয় ইবরাহিম।’
    (সুরা : ইবরাহিম,আয়াত : ৬০)
    আয়ান প্রকাশন কর্তৃক ‘ইলা শাবাবিল উম্মাহ’ বইটিতে যুবকদের উদ্দেশ্যে বলা মহানবী ﷺ এর কয়েকটি হাদিস তুলে ধরা হয়েছে,যে হাদীসগুলো যুগ যুগ ধরে যুবকদের জন্য পাথেয় স্বরূপ হিসেবে ভূমিকা পালন করে আসছে।যেসব হাদীস মেনে চললে ইহকালীন সুখশান্তির পাশাপাশি,পরকালীন সুখশান্তিও লাভ করা যাবে।বইটির মূল্য প্রতিপাদ্য বিষয় যুবকদের উদ্দেশ্যে হলেও,বইটি সবার জন্য উপকারী।
    মহান আল্লাহ তাআলার কাছে যৌবনকালই সবচেয়ে অধিক গুরুত্বপূর্ণ। এমনকি হাশরের ময়দানেও প্রতিটি ব্যক্তির যৌবনকালের হিসাব নেওয়া হবে। কিন্তু আজকালকার যুবসম্প্রদায় নানা রকম ফিতনার বেড়াজালে আটকে পড়ে দুনিয়ার মোহে গা ভাসিয়ে দিয়েছে।তারা দ্বীনের পথ থেকে ছিটকে পড়ে যাচ্ছে।ইসলামকে ভূলে তারা আধুনিক বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে চলেছে,ভূলে যাচ্ছে রাসুলের সুন্নাহ।মানছে না কোনো ইসলামিক নিয়মনীতি।বইটিতে যুবকদের উদ্দেশ্যে মহানবী ﷺ এর বাণী সংযোজন করা হয়েছে,যা প্রতিটি যুবকের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ,পাশাপাশি সকল মানুষের জন্যও অপরিহার্য ভূমিকা পালন করবে।বইটির প্রথম অংশে যুবক সাহাবাদের প্রতি মহানবী ﷺ এর উপদেশসমূহ উল্লেখ করা হয়েছে,যা সকল যুবকদের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।এছাড়া বইটির ২য় অংশে যুবকদের উদ্দেশ্যে সালেহীনগণের পক্ষ থেকে শিক্ষামূলক উপদেশসমূহ উল্লেখ করা হয়েছে।বইটি সকল যুবকদের পাশাপাশি, সর্বোপরি মানুষের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে,ইন শা আল্লাহ।
    ব্যক্তিগত ভাবে বইটি আমার অনেক ভালো লেগেছে।বর্তমানে আধুনিক বিশ্বের আনাচে কানাচে ফিতনা ছড়িয়ে পড়েছে।এসব ফিতনার মোহজালে যুবকরায় বেশি জড়িয়ে পড়েছে।তাদের এই মোহজাল থেকে বের করে আনতে এবং ইসলামের সঠিক দিকনির্দেশনা মোতাবেক যৌবনকাল পার করার জন্য বইটিতে মহনবী ﷺ গুরুত্বপূর্ণ বানীসমূহ উল্লেখ করা হয়েছে,পাশাপাশি সংক্ষিপ্ত বর্ণনাও প্রদয়ান করা হয়েছে,যা আমার অনেক ভালো লেগেছে।এছাড়া বইটির প্রচ্ছদও অনেক সুন্দর হয়েছে,মা শা আল্লাহ।
    1 out of 1 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  2. 5 out of 5

    আয়েশা সিদ্দিকা:

    বই সম্পর্কেঃ
    যৌবন মানেই বন্ধু, আড্ডা, গান, মাস্তি নয়। মহান আল্লাহ ক্ষণিকের জন্য মানুষকে তার এই বিশেষ নিয়ামত দিয়ে পরীক্ষা করেন। যারা তাতে উত্তীর্ণ হবে, তারাই সফল। আর যারা তা অবহেলা করবে, তারা চিরব্যর্থ। যে ব্যক্তি তার যৌবনকে আল্লাহর ইবাদতে ব্যয় করবে, কঠিন কিয়ামতের দিন সে মহান আল্লাহর আরশের ছায়াতলে আশ্রয় পাবে।রাসুল (সা.) বলেন,‘যেদিন আল্লাহর রহমতের ছায়া ছাড়া আর কোনো ছায়া থাকবে না,সেদিন সাত ব্যক্তিকে আল্লাহ তাআলা তাঁর নিজের ছায়ায় আশ্রয় দেবেন।তাদের মধ্যে একজন হচ্ছে সে ব্যক্তি,যে যুবক বেড়ে উঠেছে মহান প্রতিপালকের ইবাদতের মধ্যে।’
    (বুখারি, হাদিস : ৬৬০)

    আয়ান প্রকাশন কর্তৃক ‘ইলা শাবাবিল উম্মাহ’ বইটিতে যুবকদের উদ্দেশ্যে বলা মহানবী ﷺ এর কয়েকটি হাদিস তুলে ধরা হয়েছে,যে হাদীসগুলো যুগ যুগ ধরে যুবকদের জন্য পাথেয় স্বরূপ হিসেবে ভূমিকা পালন করে আসছে।যেসব হাদীস মেনে চললে ইহকালীন সুখশান্তির পাশাপাশি,পরকালীন সুখশান্তিও লাভ করা যাবে।বইটির মূল্য প্রতিপাদ্য বিষয় যুবকদের উদ্দেশ্যে হলেও,বইটি সবার জন্য উপকারী।

    বইটির প্রয়োজনীয়তাঃ
    মহান আল্লাহ তাআলার কাছে যৌবনকালই সবচেয়ে অধিক গুরুত্বপূর্ণ। এমনকি হাশরের ময়দানেও প্রতিটি ব্যক্তির যৌবনকালের হিসাব নেওয়া হবে। কিন্তু আজকালকার যুবসম্প্রদায় নানা রকম ফিতনার বেড়াজালে আটকে পড়ে দুনিয়ার মোহে গা ভাসিয়ে দিয়েছে।তারা দ্বীনের পথ থেকে ছিটকে পড়ে যাচ্ছে।ইসলামকে ভূলে তারা আধুনিক বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে চলেছে,ভূলে যাচ্ছে রাসুলের সুন্নাহ।মানছে না কোনো ইসলামিক নিয়মনীতি।বইটিতে যুবকদের উদ্দেশ্যে মহানবী ﷺ এর বাণী সংযোজন করা হয়েছে,যা প্রতিটি যুবকের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ,পাশাপাশি সকল মানুষের জন্যও অপরিহার্য ভূমিকা পালন করবে।বইটির প্রথম অংশে যুবক সাহাবাদের প্রতি মহানবী ﷺ এর উপদেশসমূহ উল্লেখ করা হয়েছে,যা সকল যুবকদের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।এছাড়া বইটির ২য় অংশে যুবকদের উদ্দেশ্যে সালেহীনগণের পক্ষ থেকে শিক্ষামূলক উপদেশসমূহ উল্লেখ করা হয়েছে।বইটি সকল যুবকদের পাশাপাশি, সর্বোপরি মানুষের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে,ইন শা আল্লাহ।

    ব্যক্তিগত অনুভূতিঃ
    ব্যক্তিগত ভাবে বইটি আমার অনেক ভালো লেগেছে।বর্তমানে আধুনিক বিশ্বের আনাচে কানাচে ফিতনা ছড়িয়ে পড়েছে।এসব ফিতনার মোহজালে যুবকরায় বেশি জড়িয়ে পড়েছে।তাদের এই মোহজাল থেকে বের করে আনতে এবং ইসলামের সঠিক দিকনির্দেশনা মোতাবেক যৌবনকাল পার করার জন্য বইটিতে মহনবী ﷺ গুরুত্বপূর্ণ বানীসমূহ উল্লেখ করা হয়েছে,পাশাপাশি সংক্ষিপ্ত বর্ণনাও প্রদয়ান করা হয়েছে,যা আমার অনেক ভালো লেগেছে।এছাড়া বইটির প্রচ্ছদও অনেক সুন্দর হয়েছে,মা শা আল্লাহ।

    1 out of 1 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  3. 5 out of 5

    জুয়াইরিয়া:

    ইলা শব্দের অর্থ প্রতি আর শাব্বুন অর্থ যুবক। অর্থাৎ শাবাবিল অর্থ তরুণ বা যুবক। উম্মাহ মানে উম্মত।’ইলা শাবাবিল উম্মাহ’ এর একত্রিত অর্থ দাঁড়ায় যুবক উম্মতের প্রতি বা তরুণ উম্মতের প্রতি।
    উল্লিখিত বইটি সাজানো হয়েছে রাসুলুল্লাহ সাঃ এবং সালাফে সালেহীনদের মাল্যবান বাণীর দ্বারা যা বাড়ন্ত যুবক কিংবা তরুণদের উদ্দেশ্যে বলা হয়েছে।

    যৌবনের এই সময়টা সবার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এই সময়টায় কোন কাজে কিভাবে ব্যায় করেছে, কতটুকু আমল করেছে সবকিছুর জওয়াব কিয়ামতের দিন দিতে হবে। মানুষ যখন বার্ধক্যে উপনীত হয় তখন সে তার যৌবনের জন্য আফসোস করে। আরেকটি বার সে সোনালি সময়টা ফিরে পেয়ে আল্লাহর রাস্তায় কাটাতে চায়। এভাবেই সময় চলে গেলে মানুষের হুঁশ ফিরে। মানুষ আফসোস করতে থাকে হায়।

    ‘ইলা শাবাবিল উম্মাহ’ বইটি মোট দুইটি অংশে বিভক্ত। প্রথম অংশে রয়েছে রাসুলুল্লাহ সাঃ কতৃক যুবকদের জন্য বাণী এবং পরবর্তী অংশে রয়েছে সালাফে সালেহীনদের নসীহত। যা আমাদের যুবসমাজে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ প্রভাব ফেলবে বলে আশা রাখা যায়।

    উল্লেখ্য শর্ট পিডিএফে বইয়ের মোট ৪০টি শিরোনাম দেখানো হলো। যুবকদের এই মূল্যবান উপদেশমালা গুলো দিয়েই তৈরি হয়েছে ফি শাবাবিল উম্মাহ বইটি। যৌবন আমাদের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ সময়। এই সময়েই আমরা সবচে ভালো কাজ করি আবার জগতের সবচেয়ে মন্দ কাজে ডুবে থাকি। নিজেকে হারিয়ে দেয় কালোর থাবায় এবং শেষপর্যন্ত নিজের যৌবনের সময় গুলোর জন্য অত্যন্ত আফসোস করতে হয়। যুবকরা যৌবনের সময় কিভাবে কোন কাজে অতিবাহিত করবে, কিভাবে ইলম অর্জন,ইবাদতে মনোযোগ, ভালো কাজ এবং নিজেকে সব গুনাহ থেকে মুক্ত রাকবে তা খুব চমৎকার ভাবে বইটিতে সজ্জিত করা হয়েছে। আয়ান প্রকাশনী কতৃক ‘ফি শাবাবিল উম্মাহ’ বইটি উম্মাহর জাগরণের অংশ হবে ইনশাআল্লাহ।

    1 out of 1 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  4. 5 out of 5

    মুহাম্মদ রুবেল মিয়া:

    সকল বিপ্লবের, সকল বিজয়ের, সকল বিদ্রোহের মূলে কারা ছিলো জানেন? যুবকেরা…
    ইসলামকে গ্রহণ, মনেপ্রাণে ধারণ, ইসলামের প্রচার ও প্রসার এবং ইসলামের জন্য সর্বপ্রথম কারা জান বিসর্জন দিয়েছেন জানেন? উম্মাহর যুবকেরা…

    যুগে যুগে হক ও বাতিলের দ্বন্দ্বে হককে বিজয়ী করেছে যুবকেরা, সমাজের ভুল শুধরে সমাজকে সঠিক পথে পরিচালিত করেছে যুবকেরা। দিগ্বিদিকে ইসলাম এবং ইমানের বিজয়ী পতাকা উড্ডীন করেছে যুবকেরা।

    ভবিষ্যতেও যুবকেরাই পৃথিবীর নেতৃত্ব দিবে, পৃথিবীকে গড়ে তুলবে।
    সেই যুবকদের জন্য কি সঠিক পথনির্দেশিকার প্রয়োজন নয়?
    অবশ্যই প্রয়োজন।
    এজন্যই আমাদের প্রিয় রাসুল সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম তাঁর হাদিসের ভান্ডারে যুবকদের জন্য রেখে গেছেন অসংখ্য দিকনির্দেশনা। আমাদের সালাফরা যুবকদের জন্য রেখে গেছেন সঠিক পথে চলার জন্য আলো। সেই দিকনির্দেশনা ও আলোর সমন্বয়ই হলো “ইলা-শাবাবিল উম্মাহ” বইটি।

    বইটিতে যুবকদের জন্য রয়েছে শিক্ষনীয় এবং লোভনীয় সকল আলোচনা। রয়েছে দিকনির্দেশনা। রয়েছে আলো।
    বইটিতে আলোচনা করা হয়েছে ইলম অর্জন, জান্নাত প্রাপ্তি, জাহান্নাম থেকে মুক্তি, জান্নাতি হুর প্রাপ্তি, যৌবনকালের পূর্ণ ব্যবহার, তাকওয়া অর্জনসহ আরো অনেক বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে। যা উম্নাহর যুবকদের উদ্বেলিত করবে। ইসলামকে বিজয়ী করতে যুবকদের পরিপূর্ণরূপে তৈরি করবে ইনশাআল্লাহ।

    Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  5. 5 out of 5

    arifbdeshok:

    ◾ইলা শাবাবিল উম্মাহ◾

    যদি প্রশ্ন করা হয় একটি জাতির ভবিষ্যত কি? তবে উত্তর আসবে সে জাতির তরুণ প্রজন্ম। তারাই পারে সবকিছু ধ্বংস করতে আবার তারাই পারে ধ্বংস থেকে কিছু সৃষ্টি করতে। তাই ইসলামে যুবকদের দেওয়া হয়েছে ভীষণ গুরুত্ব। কারণ ইসলামের এ অন্ধকারকালে তারাই পারে আলো জ্বালাতে, ইসলামকে আবার উচ্চাসনে অধিষ্ঠিত করতে।

    এ স্বপ্ন দেখতে হলে কি করতে হবে? সোজা উত্তর যুবকদেরকে তৈরি করতে হবে। আর পন্থাটা হবে অবশ্যই ইসলাম নির্দেশিত। নবিজির পন্থা থেকে উত্তম কোন পন্থা হতে পারে? অবশ্যই না।

    বইটিতে যুবকদের নবিজি সা যে যে নির্দেশনা, পরামর্শ দিয়েছেন সে আলোকেই রচিত এ বইটি। তাদেরকে সটিক পথ দেখাতে, ভুল পথ থেকে দূরে থাকতে, যৌবনকে ইসলামের জন্য কাজে লাগাতে নানা নির্দেশনা নবিজির হাদিস থেকে তুলে ধরা হয়েছে। একইসাথে আমাদের সালাফগণ যুবকদের ব্যাপারে যেসব নসিহত করে গেছেন সেসব নসিহতগুলো তুলে ধরেছেন লেখক।

    তাই বলা যায় বইটি হবে যুবকদের জন্য এক চমৎকার পথ নির্দেশনা তথা গাইড যা তাকে ইসলামের পথে অবিচল রাখবে।

    Was this review helpful to you?
    Yes
    No
Top