মেন্যু
ek dighol dine nobiji

এক দিঘল দিনে নবিজি ﷺ

পৃষ্ঠা : 160, কভার : হার্ড কভার, সংস্করণ : 2nd edition October 2021
আইএসবিএন : 978-984-95013-8-1
এই তো খেজুর গাছের শহর। প্রাণচঞ্চল হৃদয়গুলোর শহর। এখানেই তাঁর হৃদয়ের বসত। যখন এসেছিলেন দীপ্তিময় হয়ে উঠেছিল শহরের প্রতিটি কোণ। এই শহর, শহরের মানুষ আর প্রকৃতি তাকে জড়িয়ে নিয়েছিল নিবিড়... আরো পড়ুন
পরিমাণ

175  250 (30% ছাড়ে)

পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন
পছন্দের তালিকায় যুক্ত করুন
- ১,৪৯৯+ টাকার অর্ডারে সারাদেশে ফ্রি শিপিং!

প্রসাধনী প্রসাধনী প্রসাধনী

24 রিভিউ এবং রেটিং - এক দিঘল দিনে নবিজি ﷺ

5.0
Based on 24 reviews
5 star
100%
4 star
0%
3 star
0%
2 star
0%
1 star
0%
 আপনার রিভিউটি লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

  1. 5 out of 5

    :

    আলহামদুলিল্লাহ
    বইটি পড়তে আমার বেশ কিছুদিন সময় নিয়ে নিয়ে পড়তে হয়েছে। তবে যখনই পড়তে বসতাম তখনই মনে হত চলে গেছি সেই সাড়ে চৌদ্দশ বছর আগে সেই নবিজি মুহাম্মাদ (স.) এর কাছাকাছি। লেখক অসম্ভব সুন্দরভাবে ফুটিয়ে তুলেছেন সেই ঘটনা গুলো এই বইটিতে, যা সকলের জন্য মনে এক শান্তির ছায়া ফেলবে। কখনও কখনও চোখের কোনে পানিও চলে আসবে নিজের অজান্তেই। বইটি পড়তে পড়তেই বুঝে যাবেন আপনি কতটা ভালোবাসেন প্রিয় নবী হযরতম মুহাম্মাদ (স.) কে। মহান আল্লাহ লেখক আব্দুল ওয়াহহাব ইবনে নাসির আত-তুরাইরি এবং অনুবাদক মাসুদ শরীফ ভাইকে এর উত্তম প্রতিদান দান করুন। আমিন
    6 out of 6 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  2. 5 out of 5

    :

    আলহামদুলিল্লাহ খুব ভাল লেগেছে।
    মনে হচ্ছিল সারাদিন নবীজি(সাঃ)র সাথে মদিনার অলিতে গলিতে হেটে বেড়াচ্ছি। এক সময় বইয়ের পৃষ্ঠা শেষ হয়ে আসছিল তাই মন খারাপ হচ্ছিল। যদি এভাবে নবীজির সাথে অনন্তকাল থাকতে পারতাম!

    দরুদ ও সালাম প্রিয় নবীজির(সাঃ) এর সানে।

    4 out of 4 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  3. 5 out of 5

    :

    আমাদের প্রিয় নবিজী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তো কোনো সাধারণ মানুষ ছিলেন না, আল্লাহর শ্রেষ্ঠ বান্দা সম্পর্কে তাই জানার তৃষ্ণা যেন মেটে না! যত বেশি জানা যায়, ততই যেন ভালবাসা বেড়ে যায় রাসূলের প্রতি।

    বিষয়বস্তুঃ
    বইটিতে মদীনাতে নবীজির নিত্যদিনের ঘটনা সম্পর্কে বলা হয়েছে। বইটি অনেকটা ডায়েরির মত, তিনি সারাদিন কি কি করে সময় কাটাতেন তার বর্ণনা দেয়া আছে। এমন ভাবে বলা হয়েছে যাতে করে পাঠক খুব সহজ ভাবে নবিজী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এবং সাহাবীদের মানসপটে ভাসিয়ে নিতে পারেন আর সেই সাথে খুব সহজে সুন্নাতগুলো আদায় করতে পারেন। নিত্যদিনের কিছু দোয়ার কথাও বলা হয়েছে বইটিতে।

    কী পাব বইটিতেঃ
    খুব স্বতঃস্ফূর্ত এবং সাদাসিধা ছিল নবিজীর জীবন। তিনি আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে পছন্দ করতেন, সাহাবীদের সাথে খুবই ঘনিষ্ঠভাবে মিশতেন। তাঁর মত পরোপকারী, নিরহংকারী, সৎ নেতা পাওয়া মুশকিল। তাঁর কাজেকর্মে অন্য রকম একটা ভারসাম্য ছিল। দীনের দাওয়াত, ইবাদাত, দায়িত্ব পালন, পরিবারের দেখাশোনা, সাহাবী লদের দেখভাল, নিজের খেয়াল—- সবকিছুতে একটা ভারসাম্য রেখেছেন। শিশুদেরকে খুব ভালবাসতেন তিনি, নবজাতক শিশুকে কোলে তুলে নিয়েছেন, অনেকের নাম রেখেছেন, বাচ্চাদের ধূলিমাখা চেহারা মুছে দিয়েছেন। যার সাথেই দেখা হতো–মুখের কোণায় হাসি লেগেই থাকত!

    সাহাবীদের জীবনে ছিল তাঁর প্রাণোচ্ছল উপস্থিতি। প্রায় প্রতিটি সাহাবীর জীবনে নবিজি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর সাথে কোনো না কোনো স্মরণীয় ঘটনা রয়েছে! সঅব সময় তাঁদের খোঁজ খবর রাখতেন। অসুস্থ দের দেখতে যেতেন, তাঁর বরকতময় হাতের ছোঁয়ায় সুস্থ হয়ে উঠতেন তাঁরা। কেউ মারা গেলে তাঁর জানাযায় অংশ নিতেন।

    নবিজির আচার আচরণ এমন ছিল যে তিনি সবার জন্য আদর্শ স্বরূপ ছিলেন। স্ত্রীদের সাথে খারাপ ব্যবহার করেন নি, খুব সুন্দর মধুর সম্পর্ক বজায় রেখেছেন তাঁদের সাথে। নবিজির কাছাকাছি থাকার কারণে তাঁরা অন্যান্য মহিলাদের জিজ্ঞাসা তাঁর কাছ থেকে শুনে নিতে পারতেন।

    খুবই একনিষ্ঠ ভাবে তিনি সালাত আদায় করতেন। জামাতে সালাত খুব বেশি বড় না করলেও একা সালাত আদায়ের সময় তা খুবই দীর্ঘ করতেন।

    তাঁর কোনো গুনাহ ছিল না, তাও তিনি আল্লাহ রব্বুল আ’লামীনের কাছে বারবার মাফ চাইতেন। সবার জন্য দোয়া করতেন। সাহাবীরা কখনো গুনে দেখেছেন, একই মজলিসে সব মিলিয়ে একশত বার পড়েছেনঃ
    “প্রভু, আমায় ক্ষমা করুন। আমার অনুশোচনা কবুল করুন। কেবল আপনিই তাওবা কবুল করেন। সবাইকে মাফ করেন।”

    আমার অনুভূতিঃ
    নবিজি সম্পর্কে যত বেশি জানা যায়, ভালবাসা তত যেন বেড়ে যায়। বইটি পড়ে যেন তাঁকে চোখের সামনেই দেখতে পাচ্ছি। মসজিদে নববিতে বসে সাহাবীদের সাথে কথা বলছেন, পরামর্শ করছেন, কোনো অসুস্থকে দেখতে গেছেন, হাসান (রা) কে কোলে নিয়ে আদর করছেন, রাতে আবার ইবাদাতে মশগুল হয়েছেন।
    কতই না সৌভাগ্যবান তাঁরা ছিলেন, যাঁরা নবিজির সান্নিধ্য পেয়েছিলেন! আমাদের সেই সৌভাগ্য না হলেও তাঁর উম্মাত হওয়াটা ত কম কথা নয়! তাই তাঁর জীবনে তিনি যেই দৃষ্টান্ত রেখে গেছেন তা থেকে শিখতে হবে অনেক কিছু। শেষ বিচারের দিনে তিনি যেন গর্ব করে বলতে পারেন, “এরা আমার উম্মত!”

    আল্লাহ এই বইটির লেখককে, অনুবাদককে এবং প্রকাশককে উত্তম প্রতিদান দিন, আমিন।

    5 out of 5 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  4. 5 out of 5

    :

    অসাধারণ একটি বই। ওআফি লাইফ কেও ধন্যবাদ এত দ্রুত বইটি ডেলিভারি দেওয়ার জন্য।
    3 out of 3 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
  5. 5 out of 5

    :

    বইটি পড়ার সময় মনে হচ্ছিল যেন প্রিয় রাসুল (স.) কে দেখতে পাচ্ছিলাম। লেখক এত সুন্দরভাবে গুছিয়ে লিখেছেন যেন পাঠকের হৃদয় ছুয়ে যায়, এবং লেখক সফল হয়েছেন। যদি পাঠকদের সামর্থ থাকে তাহলে বইটি প্রিয় জনদের উপহার হিসেবে দিতে পারেন। প্রিয় নবির জন্য অন্তরটা কেদে উঠবে।
    3 out of 3 people found this helpful. Was this review helpful to you?
    Yes
    No
Top